নোয়াখালীর হাতিয়ায় ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ড, নিহত ২

নোয়াখালী প্রতিনিধি: নোয়াখালী জেলার দ্বীপ উপজেলা হাতিয়ার বয়ারচরের চেয়ারম্যানঘাটে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ড ঘটেছে।

এতে প্রায় ১৫ টি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান পুড়ে ছাই হয়ে গেছে এবং অগ্নিদগ্ধ হয়ে ২ জনের মৃত্যু হয়েছে। অগ্নিদগ্ধ খালেদ (৭০) নামে আরেকজনকে আশংকাজনক অবস্হায় ঢাকায় প্রেরণ করা হয়েছ।
নিহতরা হচ্ছে, বেগমগঞ্জ উপজেলার চৌমুহনী পৌরসভার গনিপুর গ্রামের বাসিন্দা মহিবুল ইসলাম নিপু (৩৭), হাতিয়া উপজেলার দরবেশ বাজার এলাকার সুগন্ধর মিয়ার ছেলে রহমত (৩৬)।

সোমবার (২২ জুন) রাত ১০টার দিকে এ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। পুড়ে যাওয়া ব্যবসা প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে রয়েছে তেল, মুদি, মোবাইল,ওষুধ, স্পিড বোর্ডের যন্ত্রাংশের সামগ্রীসহ বিভিন্ন পণ্যসামগ্রীর দোকান।
হাতিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আবুল খায়ের জেলা ফায়ার সার্ভিস স্টেশন ও সুবর্ণচর ফায়ার সার্ভিস স্টেশন এর বরাত দিয়ে এ তথ্য নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন , নিহত নিপুর তেলের দোকানের পিছনে রান্না করার সময় দোকানের ডামের তেল ছিটকে গিয়ে চুলোয় পড়লে এ অগ্নিকাণ্ডের সূত্রপাত হয়।
এ সময় রান্নাঘরে আটকে পড়ে অগ্নিদগ্ধ হয়ে দুজনের মৃত্যু হয়। আরেকজন ৭০ থেকে ৮০ শতাংশ অগ্নিদগ্ধ অবস্থায় রান্নাঘর থেকে বেরিয়ে আসে।

তিনি আরও জানান, জেলা ফায়ার সার্ভিস স্টেশনের দু’টি ও সুবর্ণচর ফায়ার সার্ভিসের ১টি ইউনিট আগুন নেভানোর চেষ্টা শুরু করে প্রায় দুই ঘণ্টা চেষ্টার পর আগুন নিয়ন্ত্রণে আসে। তবে ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ এখনো পরিমাপ করা সম্ভব হয়নি। তদন্ত শেষে বিস্তারিত বলা যাবে।